ফেব্রুয়ারী / ০৩ / ২০২৩ ০৬:৫৫ পূর্বাহ্ন

স্পোর্টস ডেস্ক

নভেম্বর / ২৯ / ২০২২
১১:২৭ অপরাহ্ন

আপডেট : ফেব্রুয়ারী / ০৩ / ২০২৩
০৬:৫৫ পূর্বাহ্ন

শেষ ষোলতে নেদারল্যান্ডস-সেনেগাল



25

Shares

দ্বিতীয় রাউন্ডের টিকেট কাটতে ড্র করলেই চলতো নেদারল্যান্ডসের, কিন্তু ডাচরা খেলল গ্রুপ ফেভারিটের মতোই। স্বাগতিক দল কাতারকে হারিয়ে গ্রুপ চ্যাম্পিয়ন হয়ে নক আউটে উঠল ভার্জিল ফন ডাইকের দল। অন্যদিকে বাঁচা-মরার লড়াইয়ে সেনেগালের মুখোমুখি হয়েছে ইকুয়েডর। টানটান উত্তেজনার ম্যাচে এনার ভ্যালেন্সিয়াদের হারিয়ে শেষ ষোলর টিকেট কেটেছে সেনেগাল।

সোমবার রাতে একই সময়ে এ গ্রুপের দুই ম্যাচে মাঠে নেমেছিল নেদারল্যান্ডস-কাতার ও সেনেগাল-ইকুয়েডর। খলিফা ইন্টারন্যাশনাল স্টেডিয়ামের ম্যাচে নেদারল্যান্ডস ২-০ গোলে হারিয়েছে কাতারকে। গ্রুপের আরেক ম্যাচে ইকুয়েডরকে ২-১ গোলে হারিয়েছে আফ্রিকার চ্যাম্পিয়ন সেনেগাল।

এদিকে, পরাশক্তি না হলেও আয়োজক হিসেবে কাতারের ওপর প্রত্যাশা ছিল। কিন্তু মধ্যপ্রাচ্যের দেশটি সেসবের কিছুই পূরণ করতে পারলো না। ঘরের মাঠের বিশ্ব আসরে হারে শুরু, হারেই বসবাস; হারই অমোঘ নিয়তি হয়ে থাকলো কাতারের জন্য। প্রথম দুই ম্যাচে বিশেষ সুবিধা করতে না পারা কাতার তৃতীয় ম্যাচেও নেদারল্যান্ডসের বিপক্ষে লড়াই করতে পারলো না। দাপুটে জয়ে শেষ ষোলো নিশ্চিত করলো ডাচরা।   


মঙ্গলবার আল বাইত স্টেডিয়ামে 'এ' গ্রুপে নিজেদের শেষ ম্যাচে নেদারল্যান্ডসের বিপক্ষে ২-০ গোলে হেরেছে কাতার। সাত পয়েন্ট নিয়ে পরের রাউন্ডে উঠলো কমলারা। অন্যদিকে তিন হার দিয়ে শেষ হলো কাতারের প্রথম বিশ্বকাপ মিশন। এই হারে আরও একটি বিব্রতকর রেকর্ডে নাম উঠেছে কাতারের। বিশ্বকাপ ইতিহাসের প্রথম আয়োজক দেশ হিসেবে গ্রুপ পর্বের সব ম্যাচ হারলো তারা।

এর আগে আরও তিনটি অস্বস্তির রেকর্ডে নাম ওঠে কাতারের। বিশ্বকাপের উদ্বোধনী ম্যাচে ইকুয়েডরের বিপক্ষে ২-০ গোলে হারে স্বাগতিকরা, যা ছিল বিশ্বকাপের ইতিহাসে প্রথম। কাতারের আগে কোনো স্বাগতিক দেশ তাদের প্রথম ম্যাচে হারেনি। দ্বিতীয় ম্যাচে সেনেগালের বিপক্ষে ৩-১ গোলে হেরে বিশ্বকাপ ইতিহাসের প্রথম আয়োজক দেশ হিসেবে দ্রুততম সময়ের মধ্যে বিদায় নেয় কাতার। এ ছাড়া দক্ষিণ আফ্রিকার পর দ্বিতীয় দল হিসেবে পরের রাউন্ডে যেতে ব্যর্থ হয় তারা।

স্পোর্টস ডেস্ক

নভেম্বর / ২৯ / ২০২২
১১:২৭ অপরাহ্ন

আপডেট : ফেব্রুয়ারী / ০৩ / ২০২৩
০৬:৫৫ পূর্বাহ্ন

বিশেষ সংবাদ